এসএসসি পদার্থবিজ্ঞান আধ্যায় ২ গতি

আমরা আমাদের চারপাশে অনেক রকম গতি দেখতে পাই। এই গতির অনেক প্রকারভেদ আছে যেমন- 

আমরা আমাদের চারপাশে যতরাশি দেখি সব রাশিকে প্রধান দুইভাগে ভাগ করা যায়- 

১। স্কেলার রাশি – যে রাশির শুধু মান এবং দিক আছে

২। ভেক্টর রাশি- যে রাশির মান এবং দিক উভয়ই আছে

 

 

এক জায়গা থেকে আরেক জায়গায় যেতে যে পরিমাণ পথ অতিক্রান্ত হয় দূরত্ব দিয়ে নির্দেশ করা হয়। আর যদি কোন দিকে কত পথ অতিক্রান্ত হল তা বোঝানো হয় তাহলে সেটি হয় সরণ। দূরত্ব একটি স্কেলার  রাশি এবং সরণ একটি ভেক্টর রাশি-

 

 

একক সময়ে অতিক্রান্ত দুরত্ব হলে দ্রুতি আর একক সময়ে অতিক্রান্ত সরণ হচ্ছে বেগ। একক সময়ে দূরত্বের দিক উল্লেখ করা থাকলে তাকে আমরা সরণ বলি- 

একক সময়ে অসম বেগের পরিবর্তনের হারকে ত্বরণ বলে। কোন বস্তুর আদিবেগ যদি u, শেষবেগ v  এবং আদিবেগ থেকে শেষবেগে আসতে সময় যদি t লাগে তাহলে ত্বরণ (acceleration), a = (v-u)/t

 

আদিবেগ u, শেষবেগ v, সময় t, ত্বরণ a এবং অতিক্রান্ত দূরত্ব s এই কয়টি রাশি নিয়ে গতির গুরুত্বপূর্ণ চারটি সূত্র প্রতিপাদন করা যায়- 

v = u+at …. (১)

s = (v+u)/t …. (২)

v^2 = u^2 + 2as …. (৩)

s = ut+ .5*at^2 …. (৪)